Home » Bengali News » আমেরিকার সঙ্গে ‘বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক’ রাখতে চায় তালিবান!

আমেরিকার সঙ্গে ‘বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক’ রাখতে চায় তালিবান!

হাইলাইটস

  • বারেবারে ‘ভোল বদলাচ্ছে’ তালিবান।
  • আমেরিকা এবং অন্যান্য দেশের সঙ্গে ‘বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক’ রাখতে চায় তারা, এমনই দাবি করেছেন তালিবানের মুখপাত্র জবিহুল্লাহ মুজাহিদ।
  • বৃহস্পতিবার তিনি জানান, সমস্ত দেশের সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রাখতে উদ্যোগী তালিবান।

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: বারেবারে ‘ভোল বদলাচ্ছে’ তালিবান। আমেরিকা এবং অন্যান্য দেশের সঙ্গে ‘বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক’ রাখতে চায় তারা, এমনই দাবি করেছেন তালিবানের মুখপাত্র জবিহুল্লাহ মুজাহিদ। বৃহস্পতিবার তিনি জানান, সমস্ত দেশের সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রাখতে উদ্যোগী তালিবান। একটি আন্তর্জাতিক সংবাদ সংস্থার দাবি অনুযায়ী, জবিহুল্লাহ মুজাহিদ বলেছেন, ‘আমাদের থেকে ভয় পাওয়ার কোনও প্রয়োজন নেই। আমরা বিশ্বের সমস্ত দেশের সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রাখতে ইচ্ছুক। এমনকী, আমেরিকার প্রতিও আমাদের একই মনোভাব থাকবে।’

প্রসঙ্গত, এর আগেও তালিবানের তরফে জানানো হয়েছিল, তারা কোনও দেশের জন্য সমস্যার কারণ হয়ে দাঁড়াতে চায় না। সমস্ত দেশের সঙ্গে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক রাখতে চায়।

আফগানিস্তানের দিকে ইঙ্গিত করে নিরাপত্তা পরিষদকে সতর্ক করলেন জয়শঙ্কর
জবিহুল্লাহ মুজাহিদ জানিয়েছিলেন, ‘আমরা চাই না কেউ দেশ ছেড়ে যাক। দেশজুড়ে সুরক্ষার ব্যবস্থা করা হয়েছে। কেউ কাউকে অপহরণ করতে পারবে না। দিন দিন কাবুলের সুরক্ষা আরও বাড়ানো হবে। আমাদের দেশ ২০ বছর আগেও মুসলিম রাষ্ট্র ছিল, আজও মুসলিম রাষ্ট্র রয়েছে। আফগানিস্তানে কী নিয়ম কানুন লাগু করা হবে তা সরকার গঠনের পর বোঝা যাবে। তালিবান সরকার গঠনের জন্য সচেষ্টভাবে কাজ করছে। সমস্ত প্রক্রিয়া শেষ হওয়ার পর এই প্রসঙ্গে বিস্তারিত জানানো হবে। সমস্ত বর্ডার এলাকা আমাদের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।’

দখল নিলেও আফগানিস্তানের জাতীয় সম্পদ অধরা তালিবানের, কেন?
এদিকে, তালিবানের তরফে জানানো হয়েছে দেশে কোনও গণতন্ত্র থাকবে না। কাউন্সিলের মাধ্যমেই চলবে আফগানিস্তান। কট্টরপন্থী এই গোষ্ঠীর সর্বোচ্চ নেতা হাইবাতুল্লা আখুন্দজাদা বসবেন মসনদে। তালিবানের উচ্চপদস্থ নেতা ওয়াহিদুল্লা হাসিমি একটি সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, আফগানিস্তানের সেনাকে কাউন্সিলের সদস্য হওয়ার জন্য আহ্বান জানানো হবে। তিনি জানান ১৯৯৬ থেকে ২০০১ সাল পর্যন্ত তালিবানি রাজত্বে যেমনভাবে দেশ চলত, এবারও ঠিক তেমনটাই হবে। কাউন্সিলের প্রতিদিনের কাজকর্ম সামাল দেবেন মুল্লা ওমর। হাইবাতুল্লা আখুন্দজাদাই হবেন কাউন্সিলের সর্বেসর্বা। তাঁর পদ প্রেসিডেন্টের সমতুল্য।


Source link

x

Check Also

কলকাতায় পালিত হল আফগানিস্থানের ১০২ তম স্বাধীনতা দিবস – Oneindia Bengali

কলকাতায় পালিত হল আফগানিস্থানের ১০২ তম স্বাধীনতা দিবস Source link